আমাদের শরীরের অন্যান্য অংশ থেকে হাতে সবার আগে বয়সের ছাপ পড়ে। অথচ এই হাতকে আমরা সবচেয়ে বেশি অবহেলা করে থাকি। নিয়ম করে আমরা মুখে নানা রকম ক্রিম, মাস্ক, প্যাক লাগিয়ে থাকি, কিন্তু হাতের যতেœ তেমন কিছু করি না। আর এই কারণে হাতের চমড়া দ্রুত কুঁচকিয়ে যায়, হাতে ছোপ ছোপ কালো দাগ পড়ে। দ্রুত বয়সের ছাপ পড়ে যায়। হাতের কালো দাগ দূর করে বয়সের ছাপ দূর রোধ করবে এমন একটি ঘরোয়া ক্রিমের কথা জানা যায় hellonatural.co  থেকে।

উপকরণ : ১/৪ কাপ ভাত, ১/২ টেবিল চামচ বিশুদ্ধ মধু, ১/২ টেবিল চামচ লেবুর রস।

যেভাবে তৈরি করবেন : ভাত, লেবুর রস এবং মধু ব্লেন্ডারের ব্লেন্ড করে নিতে পারনে। অথবা হাত দিয়ে ভাল করে ম্যাশ করে নিতে পারেন। লেবুর রস যদি আপনার ত্বকে সমস্যা করে থাকে তবে লেবুর রসের পরিবর্তে পানি ব্যবহার করতে পারেন।

যেভাবে লাগাবেন : প্রথমে হাতটা ভাল করে ধুয়ে ফেলুন। এইবার প্যাকটি আপনার হাতের পিঠে চক্রাকারে ম্যাসাজ করুন। হালকা চাপ দিয়ে ১ থেকে ২ মিনিট ম্যাসাজ করুন। তারপর হালকা গরম পানি দিয়ে ধুয়ে ফেলুন। সব শেষে একটি ভাল ময়েশ্চারাইজার লাগিয়ে নিন। এই প্যাকটি রাতে লাগাবেন। সপ্তাহে এক থেকে দুই বার এই প্যাকটি ব্যবহার করবেন। এই প্যাকটি হাতের রোদেপোড়া ছোপ ছোপ দাগ, বয়সের ছাপ দূর করে থাকে। এই প্যাকটি ত্বককে হাইড্রেটেড করে চামড়া এক্সফলিয়েট করে থাকে। তার সাথে হাতের ত্বকের রং হালকা করে থাকে।

টিপস : প্রতিদিন বাইরে যাবার আগে হাতে অব্যশই সান স্ক্রিন লাগিয়ে বের হবেন। রাতে ঘুমাতে যাওয়ার আগে যেকোন ময়েশ্চারাইজার লাগিয়ে ঘুমাতে যাবেন। এতে সকালে ঘুম থেকে উঠে পেয়ে যাবে এক জোড়া নরম কোমল হাত। ময়েশ্চারাইজারে পরিবর্তে আপনি ভ্যাসলিন বা গ্লিসারিনও ব্যবহার করতে পারেন।