অনলাইন ডেস্ক : বহুল প্রচলিত একটি কথা রয়েছে ‘রেগে গেলেন তো হেরে গেলেন’। কথাটি পুরোপুরি মিথ্যে নয়। আর রাগ কোন সমস্যার সমধানও নয়। অনেকেই আছেন যারা খুব সহজে রেগে যান। রাগান্বিত হয়েই এমন কিছু বলে ফেলেন যা বিপদে ফেলে দেয়। মাঝে মাঝে রাগ হতে পারে, কিন্তু এই রাগ যখন নিত্যদিনের সঙ্গী হয়ে যায় তখন তা ভয়ংকর রূপ নেয়। গবেষণায় দেখা গেছে কিছু খাবার আছে যা আমাদের মুডকে নিয়ন্ত্রণ করে থাকে। এই খাবারগুলো আমাদের মনের সাথে সম্পর্কিত। এমন কিছু খাবারের কথা জানা যায় boldsky.com, bubblews.com এবং girlstalkinsmack.com থেকে।

ডিম : ডিম আপনার মুডকে প্রভাবিত করে থাকে। এতে প্রোটিন, ভিটামিন বি, ডি, আছে যা আপনার রাগ নিয়ন্ত্রণ করে থাকে। প্রতিদিনকার খাদ্যতালিকায় ১টি বা ২টি ডিম রাখার চেষ্টা করুন। ডিম সিদ্ধ বা ভাজি যেকোন উপায়ে খেতে পারেন।

কলা : কলাতে প্রচুর প্ররিমাণে ভিটামিন বি এবং পটাশিয়াম আছে যা আপনার নার্ভকে শান্ত রাখে। নিয়মিত কলা খাওয়ার ফলে আপনার নার্ভ অনেকটা শান্ত হয়ে যাবে।

অ্যাভাকাডো : অ্যাভাকাডোতে প্রচুর পরিমাণে ভিটামিন বি আছে যা মস্তিষ্কের কোষকে দক্ষতার সাথে পরিচালনা করে থাকে। এতে বিটা ক্যারাটিন, লুটিন, ভিটামিন ই, এবং গ্লুটাথায়ুন আছে। যা নার্ভকে শান্ত রাখতে সাহায্য করে। আপনি এটি সালাদ বা স্মুথি দুইভাবে খেতে পারেন।

নুডলস : নুডলস কারো খুব পছন্দের খাবার আবার কারোর একদমই পছন্দ না। কিন্তু এই খাবারটি আপনার রাগ কমাতে সাহায্য করে থাকে। নিয়মিত নুডলস খান আর দেখুন আপনার নার্ভ আগের থেকে অনেক ঠান্ডা হয়ে গেছে। তবে হ্যাঁ নুডলসে অতিরিক্ত ঝাল দিবেন না।

আলু : কার্বোহাইড্রেট এবং ভিটামিন বি সমৃদ্ধি একটি খাবার হল আলু। এটি রক্তচাপ কমিয়ে আপনার মানসিক চাপ কমাতে সাহায্য করে। মজাদার এই সবজিটি নিয়মিত খান আর রাগকে নিয়ে আসুন আপনার হাতের মুঠোয়।

আপেল এবং পিনাট বাটার : রাগকে নিয়ন্ত্রণ করতে আপেল এবং পিনাট বাটারের জুড়ি নেই। হঠাৎ খুব রাগ হল একটি আপেল খেয়ে নিন আর দেখুন রাগ অনেক কমে গেছে।

ভাজা পনির : পনির খাবারটি এমনিতে অনেক মজাদার আর এই মজাদার খাবারটি আপনার রাগকে নিয়ন্ত্রণ করে থাকে। পনিরে আছে কার্বোহাইড্রেট এবং ক্যালসিয়াম যা আপনার শরীরের শক্তি যোগানোর পাশাপাশি আপনার রাগকেও নিয়ন্ত্রণ করে থাকবে।